কোষ্ঠকাঠিন্য ও এর প্রতিকার


কোষ্ঠকাঠিন্য ও এর প্রতিকার

কোষ্ঠকাঠিন্য ও এর প্রতিকার
কোষ্ঠকাঠিন্য ও এর প্রতিকার

কোষ্ঠকাঠিন্য তখনই দেখা দেয় যখন অন্ত্রের স্বাভাবিক আন্দোলন কম হয়। প্রত্যেকেরই কোন না কোন সময় এ ধরণের সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। এটি গুরুতর না হলেও, আপনার শরীরের যখন ট্র্যাক ফিরে আপনি তখন অনেক ভালো বোধ করেনঅন্ত্রের স্বাভাবিক আন্দোলন ক্ষমতা একেকজনের জন্য একেক রকম, কারও দিনে তিনবার আবার কারও দিনে মাত্র একবার হয়।খাবার প্রকৃতি অনুযায়ী এটি নির্ধারিত হয়।

কোষ্ঠকাঠিন্য
কোষ্ঠকাঠিন্য

উপসর্গঃ



১। বাথরুমের চাপ দিনে ১ বার অথবা একেবারে না আসা

২। বাথরুমের চাপ এলেও খুব কষ্টসাধ্য হওয়া

৩। শক্ত বাথরুম হওয়া

৪। এমন একটি অনুভূতি হওয়া যে কিছুই বের হচ্ছে না অনেক চেষ্টার পরেও

৫। পেটের মধ্যে গুড়গুড় শব্দ হওয়া ইত্যাদি






কেন এই সমস্যা হয়?



১। খাদ্য তালিকায় পর্যাপ্ত ডায়েটারি ফাইবার যেমন শাকসব্জি বা ফলমূল না থাকা

২। পানি কম খাওয়া

৩। পর্যাপ্ত শারীরিক পরিশ্রম না করা

৪। বাথরুম চাপিয়ে রাখা

৫। এন্টাসিড জাতীয় ঔষধ যাতে ক্যালসিয়াম এবং অ্যালুমিনিয়াম থাকে



৬। অসুখ যেমনঃ আই বি এস, কোলন ক্যান্সার, হাইপোথাইরয়ডিসম, পারকিনসন্স ডিজিজ, মাল্টিপল স্ক্লেরোসিস ইত্যাদি



কোষ্ঠকাঠিন্য দেখা দিলে কি করব?
কোষ্ঠকাঠিন্য দেখা দিলে কি করব?

এই সমস্যা দেখা দিলে কি করব?

১। খাদ্য তালিকায় পর্যাপ্ত ডায়েটারি ফাইবার যেমন শাকসব্জি বা ফলমূল রাখুন



২। বেশি বেশি পানি খান

৩। সকালে গরম পানি খাওয়ার অভ্যাস করুন

৪। শারীরিক পরিশ্রম বা ব্যায়াম করুন



৫। বাথরুম চাপিয়ে রাখার অভ্যাস পরিহার করুন

শারীরিক পরিশ্রম বা ব্যায়াম করুন কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে বাঁচুন
শারীরিক পরিশ্রম বা ব্যায়াম করুন কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে বাঁচুন


আপনি ল্যাকজেটিভ জাতীয় ঔষধ দ্বারা চেষ্টা করেও দেখতে পারেন এবং তা অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শক্রমে।



Post a Comment

0 Comments